Home জাতীয় কোটা সংস্কার আন্দোলনের প্রতি জমিয়তের পূর্ণ সমর্থন জ্ঞাপন: ছাত্র নির্যাতনের নিন্দা

কোটা সংস্কার আন্দোলনের প্রতি জমিয়তের পূর্ণ সমর্থন জ্ঞাপন: ছাত্র নির্যাতনের নিন্দা

0

সরকারী চাকুরিতে নিয়োগদানে কোটা সংস্কারের দাবিতে ছাত্রদের আন্দোলনকে যৌক্তিক আখ্যায়িত করে এই দাবী অবিলম্বে মেনে নেওয়ার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ। একই সাথে দলটি আন্দোলনকারী ছাত্রদের উপর পুলিশ ও ছাত্রলীগ কর্মীদের হামলাকে পূর্বপরিকল্পিত ও ন্যক্কারজনক আখ্যা দিয়ে কঠোর নিন্দা জানিয়ে এর সুষ্ঠু বিচার দাবি করেছে।

আজ (১০ মার্চ) বিকেলে বিভিন্ন সংবাদপত্রে পাঠানো এক বিবৃতিতে জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ কোটা সংস্কারের দাবীতে চলমান ছাত্র আন্দোলনের প্রতি দলটির পূর্ণ সমর্থনের কথা জানান। বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেন জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের সভাপতি আল্লামা আব্দুল মু’মিন শায়েখে ইমামবাড়ী, মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী, সহসভাপতি মাওলানা জহিরুল হক ভূঁইয়া, মাওলানা আব্দুর রব ইউসুফী, মাওলানা জুনায়েদ আল-হাবীব, মাওলানা মঞ্জুরুল ইসলাম আফেন্দী, যুগ্মমহাসচিব মাওলানা হাফেজ নাজমুল হাসান, মাওলানা বাহাউদ্দীন জাকারিয়া, মাওলানা ফজলুল করীম কাসেমী, অর্থসম্পাদক মুফতী মুনির হোসাইন কাসেমী, কেন্দ্রীয় নেতা মুফতী জাকির হোসাইন, মাওলানা সানাউল্লাহ মাহমুদী, যুব জমিয়তের সভাপতি মাওলানা শারফুদ্দীন ইয়াহইয়া কাসেমী, ছাত্র জমিয়তের সভাপতি মুফতী নাসির উদ্দীন খান প্রমুখ।

বিবৃতিতে জমিয়ত নেতৃবৃন্দ বলেন, সরকারী চাকুরীতে নিয়োগের ক্ষেত্রে কোটা সংস্কারে শিক্ষার্থীদের নৈতিক দাবির প্রতি জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ পূর্ণ সমর্থন জানাচ্ছে। চাকুরীর ক্ষেত্রে ৫৬ শতাংশ সরকারি পদই কোটাধারীদের জন্য সংরক্ষিত রাখার কোনই যৌক্তিকতা থাকতে পারে না। এটা শুধু মেধাবীদের প্রতি অবমূল্যায়নই নয়, রীতিমতো এটা জাতির সাথে প্রতারণার শামিল।

জমিয়ত নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, ক্ষমতা দীর্ঘায়িত করার জন্য অযৌক্তিক কোটাপ্রথাসহ আরো নানা কৌশলের আশ্রয় নিয়ে প্রশাসনকে নগ্ন দলীয়করণ ও মেধাশূন্য করার চেষ্টা চলছে। প্রশাসনিক কর্মকর্তাদেরকে রাজনৈতিক সরকারের হুকুমের গোলামে পরিণত করার অসৎ উদ্দেশ্য থেকেই প্রকৃত মেধাবী ও যোগ্যদের জন্য প্রশাসনিক কাজে শরীক হওয়ার পথ নানাভাবে রুদ্ধ করা হচ্ছে। একই উদ্দেশ্যে দেশের শিক্ষাখাতকেও ধ্বংস করে দেওয়া হচ্ছে। কারণ, একজন সুশিক্ষিত ও মেধাবী সাধারণতঃ অন্যায়কে প্রশ্রয় দিতে নিজের শিক্ষা ও বিবেকবোধের কাছে বন্দী থাকে।

জমিয়ত নেতৃবৃন্দ সরকারের প্রতি অবিলম্বে কোটা সংস্কারের দাবী মেনে নেওয়ার আহবান জানিয়ে বলেন, ছাত্রদের ন্যায্য দাবী মেনে নিয়ে দেশ পরিচালনায় প্রকৃত মেধাবী ও যোগ্যদের জন্য প্রতিযোগিতায় আসতে সুযোগ উন্মুক্ত করে দিন। ছাত্রদেরকে পুলিশ ও দলীয় সন্ত্রাসীদের হামলার টার্গেটে পরিণত করা বন্ধ করুন। মনে রাখবেন, দমন-পীড়ন চালিয়ে ও অধিকারহারা করে জনগণকে দীর্ঘ দিন দাবিয়ে রাখা যায় না। জালেম ও নিপীড়ক শাসকদের করুণ পরিণতির ইতিহাস থেকে শিক্ষা নিয়ে জনগণের মনের ভাষা বুঝার ও ইনসাফ চর্চায় মনোনিবেশ করুন।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here