Home জাতীয় অস্ট্রিয়ায় মসজিদ বন্ধ ও ইমাম বহিষ্কারের সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন...

অস্ট্রিয়ায় মসজিদ বন্ধ ও ইমাম বহিষ্কারের সিদ্ধান্তের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন আল্লামা বাবুনগরী

অস্ট্রিয়ায় সরকারীভাবে অন্তত: সাতটি মসজিদ বন্ধ করে দেয়া এবং ৬০ জন ইমামকে দেশ থেকে বের করে দেওয়ার সিদ্ধান্তের খবরে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন হেফাজতে ইসলামের মহাসচিব ও দারুল উলূম হাটহাজারী মাদ্রাসার সহযোগী পরিচালক শায়খুল হাদীস আল্লামা হাফেজ মুহাম্মদ জুনায়েদ বাবুনগরী। তিনি বলেন, ইসলাম ও মুসলমানদের প্রতি বিদ্বেষ ছড়ানো, মিথ্যাচার ও বর্ণবাদী আচরণে ইউরোপের বেশ কিছু দেশ অসভ্যতার সকল সীমা ছাড়িয়ে যাচ্ছে।

আজ (৯ জুন) শনিবার সংবাদপত্রে প্রদত্ত এক প্রতিবাদ লিপিতে হেফাজত মহাসচিব আরো বলেন, অস্ট্রিয়ার ইসলামবিরোধী এমন সিদ্ধান্ত জাতিসঙ্গ মানবাধিকার ও ধর্মীয় স্বাধীনতা সনদের মারাত্মক লঙ্ঘন। ইউরোপ নিজেদেরকে সভ্য বলে দাবী করলেও অসভ্যতার শেষ চূড়ায় গিয়ে ঠেকেছে। ইউরোপের প্রায় প্রতিটি দেশেই উগ্রবাদী বর্ণবাদিরা মুসলিম বিদ্বেষ ছড়িয়ে দিতে অপতৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে বছরের পর বছর। ইউরোপের বিভিন্ন দেশে মুসমানদের দাড়ি, টুপি এবং মসজিদ প্রতিষ্ঠা ও নামায আদায়ে বাধাগ্রস্ত করা হচ্ছে। মুসলিম নারীদেরকে হিজাব পরতে বাধা দেয়া হচ্ছে। অথচ তারাই মানবাধিকার, ধর্মীয় স্বাধীনতা ও ব্যক্তিস্বাধীনতা নিয়ে আমাদেরকে সবক দিতে আসে।

আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী অস্ট্রিয়ার চ্যান্সেলর সেবাস্তিয়ান কার্জকে চরম রেইসিস্ট উল্লেখ করে বলেন, তার স্মরণ রাখা উচিত, ইসলামকে অন্যায়ভাবে দাবিয়ে রাখতে চাইলে হিতে বিপরীত হবে। তারা ইসলামের বিরুদ্ধে যতই প্রপাগাণ্ডা ও মিথ্যাচার চালাচ্ছে, ইউরোপের মানুষ ইসলামের প্রতি ততবেশী আগ্রহী হয়ে উঠছে। কারণ, ইসলাম ও মুসলমানদেরকে টার্গেট করায় অমুসলিমদের মধ্যে ইসলাম ও মুসলমানদের সম্পর্কে জানার আগ্রহ বাড়ছে। যে কারণে অনেকেই সত্য ধর্ম ইসলামকে বুঝার ও গ্রহণ করার সুযোগ পাচ্ছে।

আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী বলেন, আমরা পত্রপত্রিকায় কিছু দিন পর পর খবর পাই যে, আজ ইউরোপের অমুক দেশে হিজাব নিষিদ্ধ করা হচ্ছে, মসজিদ বন্ধ করা হচ্ছে, নামাযে বাধা দেয়া হচ্ছে, মুসলমানদের উপর ধর্মীয় পরিচিতির কারণে হামলা করা হচ্ছে, মুসলমানদের আল্লাহ, নবী ও কুরআন নিয়ে অবমাননাকর উক্তি করা হচ্ছে। অথচ, মুসলমানদের কাছ থেকে কখনোই এমন অসভ্যতার নজির প্রকাশ পায় না।

তিনি বলেন, বিশ্বের কোন একটি মুসলিম অধ্যুষিত দেশেও অমুসলিমদের উপাসনালয় বন্ধ করে দেয়ার নজির নেই। নজির নেই অমুসলিমদের ধর্মকর্মে বাধা দিতে। কারণ, ইসলাম সবসময় ভিন্ন ধর্মের মানুষদের প্রতি সহনশীল ও সংযত আচরণের কঠোর নির্দেশনা দেয়া হয়।

আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরী অবিলম্বে মসজিদ বন্ধ ও ইমাম বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবি জানিয়ে বলেন, অন্যথায় অস্ট্রিয়ার বর্তমান সরকার ইতিহাসের আস্তাকুঁড়ে নিক্ষিপ্ত হবেন এবং সৃষ্টিকর্তার মহান আল্লাহর গজবের মুখে পড়বেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.