Home অন্যান্য অবিলম্বে খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্চানের দাবী মেনে নিন:...

অবিলম্বে খালেদা জিয়ার মুক্তি এবং নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্চানের দাবী মেনে নিন: মাওলানা শোয়াইব আহমদ

0
নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের উদ্যোগে আয়োজিত নাগরিক সমাবেশে বক্তব্য রাখছেন ইউকে জমিয়তের সভাপতি মাওলানা শোয়াইব আহমদ। ছবি- উম্মাহ।

বেগম খালেদা জিয়ার অবিলম্বে মুক্তি এবং নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার গঠনের দাবীতে নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের উদ্যোগে গত (৫ আগস্ট) রবিবার ঢাকা সেগুনবাগিচাস্থ রিপোটার্স ইউনিটির স্বাধীনতা হলে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া’র অবিলম্বে নিঃর্শত মুক্তি এবং নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার গঠনের দাবিতে এক নাগরিক সমাবেশে অনুষ্ঠিত হয়।

নাগরিক সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের উপদেষ্টা বিশিষ্ট শিল্পপতি আলহাজ্ব মোঃ মোশারফ হোসেন। প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ইউকে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম এর সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবক ও আলেমে-দ্বীন মাওলানা শোয়াইব আহমদ, কেন্দ্রীয় বিএনপির সদস্য বীরমুক্তিযোদ্ধা ইসমাঈল হোসেন বেঙ্গল, আবু নাসের মোহাম্মাদ রহমতউল্লাহ। আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে আরো বক্তব্য রাখেন ঢাকা মহানগর (দক্ষিণ) বিএনপির সহ-সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা ফরিদ উদ্দিন, কৃষকদলনেতা শাহজাহান মিয়া সম্রাট, বাগেরহাট জেলা বিএনপিনেতা ঢক্টর কাজী মনিরুজ্জামান মনির, নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের উপদেষ্টা হাজী মোঃ মাসুক প্রমূখ। সমাবেশ পরিচালনা করেছেন নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরামের সাধারণ সম্পাদক এম জাহাঙ্গীর আলম।

নাগরিক সমাবেশে মাওলানা শোয়াইব আহমদ বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপার্সন ও ২০ দলীয় জোটনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে সম্পূর্ণ ষড়যন্ত্র ও উদ্দেশ্যমূলক মামলায় গ্রেফতার করে জেলে রাখা হয়েছে। সরকার বিচার বিভাগকে প্রভাবিত করে মামলার রায় নিজেদের পছন্দমতো আদায় করে খালেদা জিয়াকে শাস্তি দিয়েছে। সরকারের অন্যায় হস্তক্ষেপের কারণে খালেদা জিয়া ন্যায় বিচার পাচ্ছেন না। আমরা সরকারের প্রতি জোর দাবি জানাই, অবিলম্বে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিতে হবে এবং আগামী জাতীয় নির্বাচন দলনিরপেক্ষ সরকারের অধীনে হতে হবে। খালেদা জিয়াকে জেলে রেখে বাংলাদেশে কোন নির্বাচন হতে পারে না। ২০ দলীয় জোটের শরীক দলসমূহ খালেদা জিয়াকে ছাড়া নির্বাচনে অংশ নিবে না এবং এক তরফা কোন নির্বাচনের যে কোন উদ্যোগ ২০ দলীয় জোট প্রতিহত করবে।

নাগরিক সমাবেশে মাওলানা শোয়াইব আহমদ আরো বলেন, দৈনিক আমার দেশ পত্রিকার সম্পাদক মাহমুদুর রহমানের উপর সরকারের ইশারায় যে জুলুম ও নির্যাতন করা হচ্ছে, এটা সভ্যতার সকল সীমা অতিক্রম করেছে। একটা জাতীয় পত্রিকার সম্পাদকের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় এমন দমন-পীড়ন ও নির্যাতনের নজির বিশ্বের কোথাও পাওয়া যাবে না। গত মাসে কুষ্টিয়ার আদালত চত্বরে পুলিশের সামনে ঘোষণা দিয়ে মাহমুদুর রহমানের উপর ভয়াবহ হামলা করা হয়েছে। সরকারের পৃষ্ঠপোষকতা ও ইশারায় দেশের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি কতটা ভেঙ্গে পড়েছে, কুষ্টিয়ায় মাহমুদুর রহমানের উপর হামলার ঘটনায় আরো স্পষ্ট হয়েছে। আমরা মাহমুদুর রহমানের উপর রাষ্ট্রীয় নিপীড়ন বন্ধের জোর দাবী জানাই।

মাওলানা শোয়াইব আহমদ চলমান নিরাপদ সড়ক আন্দোলনে ছাত্রদের ৯ দফা দাবীকে অত্যন্ত যৌক্তিক ও মানবিক উল্লেখ করে বলেন, নাগরিকদের নিরাপত্তা নিশ্চিতের দায়িত্ব সরকারের। অথচ এই সরকার নিজের ক্ষমতা আঁকড়ে রাখা এবং লুটপাট ও দুর্নীতির মাধ্যমে আখের গোছাতেই ব্যস্ত। এই লক্ষ্যে তারা শুধু জনগণকের মৌলিক অধিকারকেই হরণ করে থেমে থাকেনি, জননিরাপত্তাকেও চরমভাবে অবজ্ঞা করে চলেছে। গুম, খুন, ধর্ষণ, হামলা, মামলার পাশাপাশি সড়কেও মানুষের জীবন চরম নিরাপত্তাহীন হয়ে পড়েছে। এভাবে একটা দেশ চলতে পারে না। মাওলানা শোয়াইব আহমদ অবিলম্বে ছাত্রদের ৯ দফা দাবী মেনে নিয়ে জনউদ্বেগ নিরসনের জন্য সরকারের প্রতি জোর আহ্বান জানান।

সকাল ১১টায় শুরু হয়ে বেলা ১টায় নাগরিক সমাবেশ শেষ হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.