Home আন্তর্জাতিক প্রার্থী তালিকা ঘোষণা মমতার: প্রথম ভাষণ দিলেন প্রিয়াঙ্কা

প্রার্থী তালিকা ঘোষণা মমতার: প্রথম ভাষণ দিলেন প্রিয়াঙ্কা

0

উম্মাহ অনলাইন: ভারতের পশ্চিমবঙ্গের ক্ষমতাসীন দলের চেয়ারপারসন ও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূলের প্রার্থী তালিকা প্রকাশ করেছেন। মঙ্গলবার নিজের বাড়িতে সাংবাদিক সম্মেলন রাজ্যের ৪২টি আসনের প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করছেন তিনি। এদিকে, কংগ্রেস সভাপতির বোন ও উত্তরপ্রদেশের সাধারণ সম্পাদক প্রিয়াঙ্কা গান্ধী মোদীর রাজ্য গুজরাতে প্রথম রাজনৈতিক ভাষণ দিলেন। তিনি বলেন, ‘এবারের লড়াই স্বাধীনতা সংগ্রামের চেয়ে কম নয়।’ খবর এনডিটিভি।

প্রতিবেদনে বলা হয়, দুপুর থেকেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাড়িতেই বৈঠক হয়েছে প্রার্থী তালিকা চ‚ড়ান্ত করতে। ১২ জনের নির্বাচনী কমিটির সদস্যদের ডাকা হয়েছিল বৈঠকে। ডাকা হয়েছিল জেলা সভাপতিদেরও। কালীঘাটে নিজের বাড়িতে দলের নির্বাচনী কমিটির বৈঠক শেষ হতেই প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গত রোববার লোকসভা ভোটের তফসিল প্রকাশ করে নির্বাচন কমিশন।

এর আগে দলীয় বৈঠকে তৃণমূলনেত্রী জানিয়েছিলেন, কয়েকটি আসন ছাড়া প্রায় সব আসনেই প্রার্থী নিশ্চিত। যে যে আসনগুলো নিয়ে সমস্যা রয়েছে তা কথা বলে মিটিয়ে নেওয়া হবে, তিনি জানিয়েছিলেন। কয়েকটি কেন্দ্রে নতুন প্রার্থীও দিতে পারেন। পশ্চিমবঙ্গে ৪২টি আসনে মোট ৭ দফায় ভোট হবে। প্রথম দফা ১১ এপ্রিল, দ্বিতীয় দফা ১৮ এপ্রিল, তৃতীয় দফা ২৩ এপ্রিল, চতুর্থ দফা ২৯ এপ্রিল, পঞ্চম দফা ৬ মে, ১২ মে ষষ্ঠ দফা এবং ১৯ মে সপ্তম দফার ভোট হবে।

এদিকে, দলে অভিষেক অনেক দিন আগে হলেও সেই অর্থে জনসভায় ভাষণ দেননি প্রিয়াঙ্কা গান্ধী। মঙ্গলবার সেই জল্পনার অবসান হল। অবশেষে প্রথম রাজনৈতিক বক্তব্যের জন্য মোদীর রাজ্য গুজরাতকেই বেছে নিলেন প্রিয়ঙ্কা। আর প্রথম দিনই কর্মসংস্থান, বেকারত্ব, কৃষক ইস্যু নিয়ে তোপ দাগলেন কংগ্রেস সাধারণ সম্পাদক।
এর আগে, গুজরাতের আমদাবাদে বৈঠকে বসে কংগ্রেস ওয়ার্কিং কমিটি। লোকসভা ভোটে রণকৌশল ঠিক করতেই দলের সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণ কমিটির এই বৈঠক। সোনিয়া গান্ধী, রাহুল গান্ধী, মনমোহন সিং ছাড়াও দলের শীর্ষ নেতৃত্ব উপস্থিত ছিলেন বৈঠকে।

বৈঠক শেষেই প্রিয়াঙ্কা মোদী সরকারের বিরুদ্ধে একের পর এক নানা ইস্যুতে আক্রমণ করেন। পাঁচ বছর আগে ক্ষমতায় আসার সময় মোদী প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন, কালো টাকা উদ্ধার করে গরিব মানুষের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে ১৫ লক্ষ টাকা ও প্রতি বছর দু’কোটি বেকারের চাকরি দেয়া হবে। প্রিয়াঙ্কা এ দিন প্রশ্ন তোলেন, ‘কোথায় গেল সেই ১৫ লক্ষ টাকার প্রতিশ্রুতি। কেনই বা পাঁচ বছরেও চাকরির প্রতিশ্রুতি পূরণ হল না?’

মোদী জমানার পাঁচ বছরে কৃষকদের অবস্থা আরও খারাপ হয়েছে। এই ইস্যুতে এদিন মোদী সরকারকে আক্রমণের পাশাপাশি হিংসা ছড়ানো নিয়েও প্রিয়াঙ্কা বলেন, ‘যেদিকেই তাকান দেখতে পাবেন, গণপিটুনি, হত্যা চলছে। এ এক ভয়ঙ্কর পরিস্থিতি। এই পরিস্থিতির বিরুদ্ধে লড়াই করতে হবে আপনাদেরই। আর এই যুদ্ধ স্বাধীনতা সংগ্রামের চেয়ে কিছু কম নয়। এই দেশ গড়েছেন কৃষক, শ্রমিকরা। আপনারাই পারেন এই দেশকে রক্ষা করতে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.