Home আন্তর্জাতিক ব্রুনাইয়ে ইসলামী শরিয়া আইন চালু হয়েছে

ব্রুনাইয়ে ইসলামী শরিয়া আইন চালু হয়েছে

1
ব্রুনাইয়েরসুলতান হাসানাল বলকিয়া। ছবি- এএফপি।

উম্মাহ অনলাইন: দক্ষিণপূর্ব এশিয়ার দেশ ব্রুনাইয়ে ইসলামী শরিয়া আইন চালু হয়েছে। গতকাল বুধবার ব্রুনাইয়ের সুলতান হাসান আল বলকিয়া এ আইন চালুর ঘোষণা দেন। নতুন এ আইনে সমকামিতা ও ব্যভিচারের জন্য পাথর ছুঁড়ে মৃত্যুদণ্ডের কথা বলা হয়েছে। তবে সমকামিতা অনেক আগে থেকেই নিষিদ্ধ ছিল ব্রুনাইয়ে। সমকামিতা নিষিদ্ধ করে এর শাস্তির বিধান করা হয়েছিল ১০ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড। ব্রুনাইয়ে শরীয়া আইন চালুর পর সে দেশের নাগরিকরা ব্যাপকহারে একে সমর্থন জানিয়েছে।

ব্রুনাইতে নতুন শরিয়া দণ্ডবিধি অনুযায়ী, অভিযুক্তরা যদি নিজেদের সমকামী বলে স্বীকার করেন অথবা অন্তত চারজন প্রত্যক্ষদর্শী তাদের এ ধরনের কাজ করতে দেখেন, তবেই তাদের সমকামিতার দায়ে অপরাধী সাব্যস্ত করা যাবে। তাছাড়া চুরির দায়ে অঙ্গচ্ছেদের মতো দণ্ডও রাখা হয়েছে আইনটিতে।

ব্রুনাইয়ের এই সিদ্ধান্তে পশ্চিমা বিশ্ব ব্যাপক সমালোচনা মুখর হয়েছে। আন্তর্জাতিক মানবাধিকার আইনানুযায়ী, যে কোনো পরিস্থিতিতে পাথর ছোঁড়া, অঙ্গচ্ছেদ অথবা বেত্রাঘাত, আইনি সংস্থাগুলোর হেফাজতে নিয়ে নির্যাতনসহ সব ধরনের শারীরিক শাস্তি নিষিদ্ধ করা হয়েছে।

স্বাক্ষর করলেও ব্রুনেই দারুস সালাম এখনও ঘোষণাপত্র অনুমোদন করেনি। ২০১৪ সালে জাতিসংঘে দেশটির মানবাধিকার-সংক্রান্ত পর্যালোচনায় ওই ঘোষণাপত্রের সব সুপারিশ বাস্তবায়ন করতে অস্বীকার করে তারা।

আন্তর্জাতিক মানবাধিকারের মূল ঘোষণাপত্রে যে কোনো ধরনের নির্যাতনসহ ও অন্যান্য নিষ্ঠুর শাস্তি পুরোপুরি নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এই ঘোষণা প্রত্যেক রাষ্ট্রের জন্য বাধ্যতামূলক। আন্তর্জাতিক আইন হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া হলেও এর অধিকাংশ ধারাগুলোই অনুমোদন করেনি ব্রুনাই।

তরুণ সমাজকে অসত্যের ধূম্রজালে ঠেলে দেয়া হয়েছে: আল্লামা বাবুনগরী