Home শীর্ষ সংবাদ জাতিসংঘে স্থান পায়নি রোহিঙ্গা ইস্যু: বহুবিধ সংকটে বাংলাদেশ

জাতিসংঘে স্থান পায়নি রোহিঙ্গা ইস্যু: বহুবিধ সংকটে বাংলাদেশ

প্রাণ বাঁচাতে লাখ লাখ রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয়ের জন্য আসে।

উম্মাহ অনলাইন: মিয়ানমারে জাতিগত নিধনের শিকার ১১ লাখ রোহিঙ্গাকে আশ্রয় দিয়েছে বাংলাদেশ। মানবিক কারণে রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিলেও রোহিঙ্গাদের কারণে এখন বহুবিধ সমস্যার মুখোমুখি হতে হচ্ছে বাংলাদেশকে।

বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ একটি শরণার্থী সমস্যা হলেও জাতিসংঘ অধিবেশনের মূল প্রতিপাদ্যে এবার শরণার্থী ইস্যুটি স্থান পায়নি। তবে, রোহিঙ্গা ইস্যুতে বিশ্ব নেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণে সাধারণ পরিষদের সাইড লাইনে বাংলাদেশ একাধিক ইভেন্টের আয়োজন করেছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন জানিয়েছেন, রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে ফিরিয়ে দিতে বিশ্ব নেতাদের ওপর চাপ সৃষ্টি অব্যাহত রেখেছেন বাংলাদেশ। রোহিঙ্গা সংকটের স্থায়ী সমাধানের বিষয়ে এখন চীন, রাশিয়া ও ভারতের সমর্থন পাওয়া যাচ্ছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, জাতিসংঘ সাধারণ অধিবেশনে রোহিঙ্গা সমস্যা মূল প্রতিপাদ্য হিসেবে না থাকলেও নির্ধারিত অলোচ্যসূইচতে অংশ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশের সাফল্য এবং অবস্থান তুলে ধরার পাশাপাশি রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়েও বক্তব্য দেবেন।

এদিকে, রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশি জাতীয় পরিচয়পত্র (এনআইডি) পাবার কেলেঙ্কারির ঘটনায় নির্বাচন কমিশন এবং এনআইডি উইংয়ের অন্তত ১৫ জন কর্মকর্তা এবং কর্মচারীর সম্পৃক্ততার তথ্য পেয়েছে কাউন্টার টেররিজম ইউনিট। রোহিঙ্গাদের এনআইডি কার্ড দেয়ার মাধ্যমে এসব কর্মকর্তা-কর্মচারি কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

জাতীয় পরিচয়পত্র অনুবিভাগ মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাইদুল ইসলাম বলেন, নির্বাচন কমিশনের সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে সর্বোচ্চ আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার জন্য যা প্রয়োজন তাই করা হবে।

এদিকে, গত কয়েকদিনের অনুসন্ধান ও যাচাই-বাছাইয়ের পর রোহিঙ্গা সন্দেহে ৬১ জনের পরিচয়পত্র ব্লক করেছে এনআইডি উইং।

হারিয়ে যাওয়া ল্যাপটপে ইসির সফটওয়ার, কমিশনের বিশেষ মডেম এবং নির্বাচন কর্মকর্তার ইউজার এবং পাসওয়ার্ড দালাল চক্রের হাতে চলে যাবার পর এবার   এনআইডি সার্ভার সুরক্ষায় আরো পাঁচ ধাপে প্রযুক্তিগত নিরাপত্তা গ্রহণ করেছে নির্বাচন কমিশন।

গত মাসের শেষ সপ্তাহে টেকনাফে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে স্মাটকার্ডধারী এক রোহিঙ্গা ডাকাতের মৃত্যুর পর অনুসন্ধান করতে গিয়ে বের হয়ে আসে এনআইডি উইংয়ের অনিয়মের বিষ্ময়কর নানা তথ্য। এ ঘটনায় থানায় দায়ের করা মামলায় কাউন্টার টেররিজম ইউনিট তদন্ত করলেও সমান তালে অনুসন্ধান চালিয়ে যাচ্ছে দুর্নীতি দমন কমিশনও।