Home অর্থনীতি করোনার মধ্যেও যেভাবে মুনাফা করল স্যামসাং

করোনার মধ্যেও যেভাবে মুনাফা করল স্যামসাং

উম্মাহ অনলাইন: করোনার মধ্যেও ভালো মুনাফা করেছে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিষ্ঠান স্যামসাং ইলেকট্রনিকস। বিশ্বের সবচেয়ে বড় স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান স্যামসাং বলছে, গত বছরের তুলনায় এ বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে কোম্পানির মুনাফা বেড়েছে ২৩ শতাংশ। কোম্পানিটি বলছে, করোনার কারণে লকডাউন থাকায় বাসায় বসে অফিসের কাজ ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষাদান কর্মসূচি চালু থাকায় ব্যাপক বিক্রি বেড়েছে তাদের। বিবিসি অনলাইনের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়।

কোম্পানিটি বলছে, স্যামসাংয়ের ডেটা সেন্টারগুলো হোম ওয়ার্কিং এবং স্কুলিংয়ে সহায়তা করার ক্ষমতা বাড়িয়েছে। স্মার্টফোনের চাহিদা কমলেও চিপস ব্যবসার কল্যাণে লাভে থাকতে সক্ষম হয়েছে কোম্পানিটি

আরও পড়তে পারেন-

ওজন দরে গরু ক্রয় করে কুরবানী করা জায়েয হবে কি?

রাসূলুল্লাহ (সা.)এর দাম্পত্য জীবনে খাদিজা (রাযি.)এর ভূমিকা

কুরবানী এলেই তাদের পশুপ্রেম বেড়ে যায়!

ইসলামে কুরবানীর বিধান সুস্পষ্ট: এর বিকল্প অন্য কিছুতে হতে পারে না

কুরবানীর ঐতিহাসিক পটভূমি এবং দার্শনিক তাৎপর্য

এক বিবৃতিতে স্যামসাং জানায়, কোভিড-১৯-এর প্রভাব অব্যাহত থাকায় ওয়ার্কিং এবং অনলাইন শিক্ষার সঙ্গে সম্পর্কিত ক্লাউড অ্যাপ্লিকেশনগুলোর ব্যাপক চাহিদা ছিল। এর ফলে মেমোরি চিপ বিজনেস ব্যাপক লাভজনক হয়েছে। যদিও মোবাইলের চাহিদা তুলনামূলকভাবে কমে গেছে। বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে স্যামসাংয়ের স্মার্টফোন বিক্রি কমেছে ৫৫ মিলিয়ন ইউনিট। সে হিসাবে আগের বছরের একই সময়ের চেয়ে কোম্পানির স্মার্টফোন বিক্রি কমেছে ২৭ শতাংশ।

তবে শুধু স্যামসাং নয়, চিপ প্রস্তুতকারক আরেক কোরীয় কোম্পানি এসকে হাইনিক্স ও যুক্তরাষ্ট্রের মাইক্রন টেকনোলজিও করোনার কারণে বেশ লাভজনক অবস্থানে চলে এসেছে। গত সপ্তাহে এসকে হাইনিক্স জানায়, দ্বিতীয় প্রান্তিকে গত বছরের তুলনায় তাদের মুনাফা তিন গুণ হয়েছে। জুনে মাইক্রন টেকনোলজি জানায়, চিপের চাহিদা বাড়ায় প্রত্যাশার চেয়ে বেশি মুনাফা আশা করছে তারা। করোনার কারণে কোটি কোটি মানুষ বাসায় অবস্থান করছে। তারা বাসায় বসে কম্পিউটারে কাজ করছে, অফিসের কাজ করছে, স্কুলগুলো কার্যক্রম পরিচালনা করছে-সব মিলিয়ে ইন্টারনেট-নির্ভরতা বেড়েছে।

উম্মাহ২৪ডটকম:এমএমএ

উম্মাহ পড়তে ক্লিক করুন-
https://www.ummah24.com

দেশি-বিদেশি খবরসহ ইসলামী ভাবধারার গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে ‘উম্মাহ’র ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।