Home অন্যান্য খবর পবিত্র ও পরিচ্ছন্ন সুস্থ থাকার অনুসঙ্গ: জুমার বয়ানে মুফতি আমিনুর রশিদ

পবিত্র ও পরিচ্ছন্ন সুস্থ থাকার অনুসঙ্গ: জুমার বয়ানে মুফতি আমিনুর রশিদ

আবু তালহা তোফায়েল: সিলেটের গোয়াইনঘাট উপজেলা মডেল মসজিদের খতীব মুফতি আমিনুর রশিদ গোয়াইনঘাটী শুক্রবার (২০ জানুয়ারি) জুমার খুতবাপূর্ব বয়ানে বলেছেন, সুস্থ ও সুন্দর জীবন লাভের অন্যতম উপায় পবিত্র ও পরিচ্ছন্ন থাকা। এ পবিত্রতা ও পরিচ্ছন্নতাপূর্ণ জীবনযাপন ইসলামের অন্যতম সৌন্দর্য এবং ইবাদত।

তিনি বলেন, আল্লাহ তাআলা পবিত্র ও পরিচ্ছন্ন ব্যক্তিদের ভালোবাসেন। পবিত্র থাকার ব্যাপারে কুরআন ও হাদিসের বিভিন্ন জায়গায় বারংবার উৎসাহিত করা হয়েছে এবং যারা পূতপবিত্র থাকবেন, তাদের জন্য প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছে প্রভূত কল্যাণ ও সওয়াবের।

মুফতি আমিনুর রশিদ আরো বলেন, মদিনার নিকটবর্তী কুবা এলাকার লোকজন পরিচ্ছন্ন জীবন যাপন করতেন। তাদের ভূয়সী প্রশংসা করে মহান আল্লাহ তায়ালা ইরশাদ করেছেন, ‘সেখানে এমন লোকেরা রয়েছে, যারা ভালোভাবে পবিত্রতা অর্জন করতে পছন্দ করে । আর আল্লাহ তায়ালা পবিত্রতা অর্জনকারীদের পছন্দ করেন ।’ (সুরা তাওবা, আয়াত- ১০৮)। “নিশ্চয়ই আল্লাহ তায়ালা তাওবাকারীদের ভালোবাসেন এবং ভালোবাসেন অধিক পবিত্রতা অর্জনকারীদের। (সুরা বাকারা, আয়াত- ২২২)।

আরও পড়তে পারেন-

বয়ানে খতিব সাহেব বলেন, বিশ্বনবীর নসিহত থেকে ঘরের হাঁড়ি-পাতিল পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার বিষয়গুলোও বাদ যায়নি। তিনি ঘরের শোয়া-বসার বিছানাগুলোও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখতে বলেছেন। বাড়ির আঙিনায় হাঁটাচলা, শরীরের পোশাক-পরিচ্ছদসহ সব কিছুর পবিত্রতা ও পরিচ্ছন্নতার ব্যাপারে বিশেষ দিকনির্দেশনা দিয়েছেন। কারণ, এসব কিছুর পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ও পবিত্রতার মধ্যে শারীরিক সুস্থতা, পবিত্রতা এবং আত্মিক প্রশান্তি ও প্রফুল্লতা অর্জিত হয়। ক্ষতিকর পোকামাকড়, মশা-মাছি দূর হয়। এতে শরীরে যেমন সুস্থ, আনন্দ ও সজিবতাপূর্ণ থাকে তেমনি মানসিক সুস্থতাও ফিরে আসে অনেক বেশি।

মুফতি আমিনুর রশিদ বলেন, প্রিয়নবী (সা.) ইরশাদ করেছেন, “তোমরা তোমাদের উঠান ও আঙিনা পরিচ্ছন্ন ও পরিপাটি করে রাখো।”

তিনি আরও বলেন, ইসলামের গুরুত্বপূর্ণ ইবাদত হল নামাজ, এই নামাজের জন্য পূর্বশর্ত আরোপ করা হয়েছে পবিত্রতা(অজু) অর্জনকে। আরেক হাদিসের মধ্যে পবিত্রতাকে ঈমানের অর্ধেক বলে ঘোষণা করা হয়েছে। হযরত আবু মালেক আশআরি (রা.) বলেন, রাসুল (সা.) বলেছেন, ‘পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ঈমানের অর্ধেক।’ (মুসলিম, হাদিস- ২২৩)।

আল্লাহ তায়ালা পবিত্রতা অর্জনের সরাসরি নির্দেশনা দিতে গিয়ে বলেন, হে বস্ত্রাচ্ছাদিত, উঠুন, সতর্ক করুন; এবং আপনার প্রতিপালকের শ্রেষ্ঠত্ব ঘোষণা করুন। আপনার কাপড় পবিত্র রাখুন, অপবিত্রতা পরিহার করে চলুন। (সূরা: মুদ্দাছছির, আয়াত- ১-৪)।

বয়ানের শেষ পর্যায়ে খতীব আমিনুর রশীদ বলেন, গোয়াইনঘাট কেন্দ্রীয় মসজিদ আজ মডেল মসজিদে রূপান্তরিত হয়েছে। আজ প্রথম জুমা আদায় করতে যাচ্ছি। সুন্দর পরিপাটি মসজিদ, আমরাও যথাযথ এর সৌন্দর্য ও মসজিদের আদব রক্ষা করবো। পাশাপাশি সব মানুষেরই উচিত, নিজের ও সুন্দর পরিবেশের জন্য পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন ও পবিত্রতাপূর্ণ জীবন যাপন করা। নিয়মিত অজু-গোসল করা। সব সময় পবিত্র থাকা। পরিবেশ সুন্দর ও পরিচ্ছন্ন রাখা। এ কথা মনে রাখা- পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ও পবিত্রতা শুধু সুস্থ থাকার অনুসঙ্গই নয়, বরং তা কুরআন-সুন্নাহর নসিহত এবং ইবাদত।

আল্লাহ তাআলা সবাইকে পবিত্র ও পরিচ্ছন্ন জীবন যাপন করার তাওফিক দান করুন। কুরআন-সুন্নাহর দিকনির্দেশনা অনুযায়ী যথাযথ আমল করার তাওফিক দান করুন। আমিন।

উম্মাহ২৪ডটকম: আইএএ

উম্মাহ পড়তে ক্লিক করুন-
https://www.ummah24.com

দেশি-বিদেশি খবরসহ ইসলামী ভাবধারার গুরুত্বপূর্ণ সব লেখা পেতে ‘উম্মাহ’র ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।