Home জাতীয় আবরারের জীবনদান আধিপত্যবিরোধী সংগ্রামে মাইলফলক হয়ে থাকবে: আল্লামা কাসেমী

আবরারের জীবনদান আধিপত্যবিরোধী সংগ্রামে মাইলফলক হয়ে থাকবে: আল্লামা কাসেমী

0

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশে’র মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী বলেছেন, ভারতের বহুমুখী আগ্রাসনসহ সর্বশেষ ফেনী নদীর পানি ভারতকে দেয়ার প্রতিবাদ এবং ভারতের সাথে বাংলাদেশের অন্যায্য চুক্তির অসঙ্গতিসমূহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে তুলে ধরায় বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদকে নৃশংসভাবে পিটিয়ে খুন করা হয়েছে। দেশের সর্বোচ্চ প্রতিষ্ঠানের একজন দেশপ্রেমিক মেধাবী ছাত্রকে রুম থেকে ধরে নিয়ে হলের ভেতরে এভাবে পিটিয়ে হত্যাকা- দেশের জন্য এক ভয়াবহ অশনিসঙ্কেত। এই হত্যাকাণ্ডের সাথে ক্ষমতাসীন দলের ছাত্র সংগঠনের নেতাদের প্রত্যক্ষ সংশ্লিষ্টতার কথা পত্রপত্রিকায় সবিস্তার প্রকাশিত হয়েছে। আমরা আবরার হত্যাকাণ্ডের তীব্র নিন্দা এবং অবিলম্বে হত্যাকারীদের দ্রুত বিচারের মাধ্যমে সর্বোচ্চ শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

সোশ্যাল মিডিয়ায় দেশের স্বাধীনতা-সার্বভৌমত্ব, মাটি, পানি ও অধিকার রক্ষা সংগ্রামে বুয়েট ছাত্র আবরার ফাহাদ প্রথম শহীদ উল্লেখ করে আজ (৮ অক্টোবর) এক বিবৃতিতে জমিয়ত মহাসচিব আরো বলেন, আবরারের জীবনদান আধিপত্যবিরোধী সংগ্রামে আগামীর জন্য মাইলফলক হয়ে থাকবে। ইতিমধ্যেই সারাদেশের সাধারণ ছাত্রসমাজ আবরার হত্যার প্রতিবাদের পাশাপাশি আধিপত্যবাদের বিরুদ্ধেও ফুঁসে উঠেছে। আবরারের খুনীদের বিচারের দাবী ও আধিপত্যবাদের বিরুদ্ধে ছাত্রদের প্রতিবাদি আওয়াজ ও মিছিলে মিছিলে এখন সারাদেশ উত্তাল হয়ে উঠছে। দেশপ্রেমিক সাধারণ ছাত্রসমাজ ও শান্তিপ্রিয় জনতার প্রতি আমাদের উদাত্ত আহবান, এই মৃত্যু উপত্যাকাকে শান্তিময় করতে আবরার হত্যার প্রতিবাদ ও বিচার দাবিতে সকলে সোচ্চার শামিল হয়ে দেশবিরোধী শক্তিকে উৎখাত করতে হবে।

তিনি বলেন, আবরার সত্য তথ্য উল্লেখ করে ফেসবুকে পোস্ট দিয়েছিল। সেই পোস্টে ভারতের সাথে অসম চুক্তির অসঙ্গতিগুলো তুলে ধরেছিল। আর এজন্যই আজ তাকে জীবন দিতে হলো। মেধাবী তরুণ আবরার ফাহাদ এর নৃশংস হত্যার ঘটনায় গোটা জাতিকে যেমন কাঁদিয়েছে, তেমনি বিক্ষুব্ধ করে তুলেছে। আজ দলমত নির্বিশেষে সবাইকে এই ভয়ঙ্কর হত্যাকান্ডের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে, যাতে আর কোন মায়ের কোল শূন্য না হয়।

আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী বলেন, এটা কোন দেশ? খুনীদের সরকারী দলের তকমা থাকলেই তারা দেশটাকে হিংস্রতার অভয়ারণ্য বানিয়ে ছাড়ে। আর তাই নির্ভয়ে তারা বিরোধী মত ও পথের মানুষদের অবলীলায় হত্যা করতেও দ্বিধা করছে না।

জমিয়ত মহাসচিব বলেন, আমরা সরকারের প্রতি তীব্র হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলতে চাই, অবিলম্বে আবরার ফাহাদের খুনিদের গ্রেফতার এবং দ্রুত বিচারের মাধ্যমে সর্বোচ্চ শাস্তি কার্যকর করুন। সাথে সাথে ভারতের সাথে সম্পাদিত ফেনী নদীর পানি, গ্যাস বিক্রি, উপকূলে রাডার স্থাপন, সড়ক পথে ট্রনাজিট, নদী ও বন্দর ব্যবহারসহ অসম সকল চুক্তি বাতিল করতে হবে। অন্যথায় সর্বস্তরের ছাত্র-জনতা দেশের স্বাধীনতা, সার্বভৌমত্ব, জাতীয় স্বার্থ রক্ষা এবং দেশকে নিরাপদ করতে দুর্বার গণ-আন্দোলন গড়ে তুলতে বাধ্য হবে। -বিজ্ঞপ্তি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.